এরকম অনেকসময় হয় যে আমরা ওয়ার্ডপ্রেস ড্যাশবোর্ড থেকে কোন পেইড থিম ইন্সটল করে ফেলি, কোন ব্যাকআপ না রেখেই। বা এখন বিভিন্ন হোস্টিং কোম্পানি থেকে এফিলিয়েট মার্কেটিং করে টাকা আয় করার জন্য অনেকেই ফ্রী ওয়ার্ডপ্রেস সেটাপ পরিষেবা প্রদান করে থাকেন। তারা আবার পেইড থিম ও দিয়ে দেন। আপনাকে শুধু তাদের এফিলিয়েট লিঙ্ক থেকে হোস্টিং কিনতে হবে। এমন অবস্থায় অনেক সময়ই আমাদের ওয়ার্ডপ্রেস ড্যাশবোর্ড থেকে এক্টিভেটেড থিম ডাউনলোড করার প্রয়োজন পড়ে। আজকেই এই পোস্টে আমি সেই পদ্ধতি নিয়েই আলোচনা করব। তবে খুবই সংক্ষেপে।

Export WordPress Theme

ওয়ার্ডপ্রেস ব্লগ থেকে কীভাবে ইন্সটল করা থিম এক্সপোর্ট করবেন?


১) এর জন্য প্রথমেই আপনাকে যেতে হবে Plugins > Add New অপশনে।

২) এখন সার্চ বারে গিয়ে টাইপ করুন - WP-clone-template

৩) তারপর আবার মেইন মেনু থেকে Appearance > Export এ যান।

৪) এবার আপনার প্রয়োজনীয় থিমটি সিলেক্ট করুন আর Export বাটনে ক্লিক করুন।

৫) ব্যাস, আপনার কাজ শেষ, আপনার সিলেক্ট করা থিমটি আপনার হার্ড ড্রাইভে ডাউনলোড হয়ে যাবে।

এইভাবে আপনি এক বা একাধিক থিম এক্সপোর্ট করতে পারবেন। এবং এক্সপোর্ট করা থিম গুলো অন্য কোন ওয়ার্ডপ্রেস সাইটে গিয়ে ইনস্টল করতে পারবেন।

এক্সপোর্ট করা থিম কীভাবে অন্য ওয়ার্ডপ্রেস ব্লগে আপলোড এবং ইন্সটল করবেন?


১) প্রথমে আপনি যে ওয়ার্ডপ্রেস সাইটে আপনার এক্সপোর্ট করা থিমটি ব্যাবহার করতে চান সেই সাইটের এডমিন প্যানেলে লগ ইন করুন।

২) তারপর, চলে যান Appearance > Themes এ। Upload বাটনে ক্লিক করুন।

৩) এখন আপনার হার্ড ড্রাইভ থেকে এক্সপোর্ট করা থিমটি সিলেক্ট করে আপলোড করে দিন।

৪) আপলোড শেষ হওয়ার পর আপনাকে সাক্সেস মেসেজ দেখানো হবে।

৫) এবার আপনি চাইলেই Activate বাটনে ক্লিক করে থিমটি আপনার সাইটে এক্টিভেট করতে পারবেন।

বিঃদ্রঃ যদি থিমের কোন কোড এডিট করা হয়ে থাকে তবে এক্সপোর্ট করার সময় সেই মডিফিকেশন গুলিও থেকে যাবে। সুতরাং অনেক ক্ষেত্রেই দেখা যাবে যে ফুটারে থিমটি পূর্বে যে সাইট থেকে ডাউনলোড করা হয়েছিল, সেই সাইটের ফুটার লিঙ্ক গুলি এসে পড়েছে।

তবে এটা দেখে ঘাবড়াবেন না। আপনি Appearance > Editor > Footer.php ফাইলে গিয়ে সেইসব কাস্টমাইজেশন গুলিকে আপনার দরকার অনুযায়ী মডিফাই করে নিতে পারবেন।

তবে হ্যা। যদি পূর্বে আপনি এই থিমে ম্যানুয়ালি কোন স্পেশাল কোড যুক্ত করে থাকেন, তবে সেটিও কিন্তু এক্সপোর্ট করার পর অপরিবর্তিত থেকে যাবে। সেক্ষেত্রে আপনাকে আবার ম্যানুয়ালি সেই কোড গুলিকে খুঁজে খুঁজে রিমুভ করতে হবে। তবে বেশীরভাগ ক্ষেত্রেই কোন অসুবিধে হয় না।

আশা করি আপনি পুরো ব্যাপারটি ভালোভাবে বুঝতে পেরেছেন। যদি কোন অসুবিধে থাকে তবে অবশ্যই কমেন্টের মাধ্যমে জানাতে ভুলবেন না।
শেয়ার করুন :→

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন Blogger

আপনার একটি মন্তব্য একজন লেখক কে ভালো কিছু লিখার অনুপেরনা যোগাই তাই প্রতিটি পোস্ট পড়ার পর নিজের মতামত জানাতে ভুলবেন না । তবে বন্ধুরা এমন কোন মন্তব্য পোস্ট করবেন না যার ফলে লেখকের মনে আঘাত করে ! কারণ একটা ভাল মন্তব্য আমাদের আরও ভাল কিছু লিখার অনুপেরনা যাগাই !!

 
Top
Blogger Widgets